টিপস অ্যান্ড ট্রিক্স

চুরি হওয়া ল্যাপটপ ফিরে পাওয়ার উপায়

ল্যাপটপ চুরি গেলে আর্থিক ক্ষতির থেকেও বেশি ‍দুশ্চিন্তায় পড়তে হয়, হার্ডডিস্কে জমা থাকা তথ্যাদি নিয়ে। ল্যাপটপ চুরি গেলে বা হারিয়ে গেলে তার সন্ধান পাওয়ার দারুন একটি উপায় হচ্ছে- মাইক্রোসফটের ‘ফাইন্ড মাই ডিভাইস’ ফিচার।

এই ফিচারের মাধ্যমে যেকোনো সময় আপনি আপনার ল্যাপটপের লোকেশন জানতে পারবেন। এছাড়া ফিচারটির মাধ্যমে ল্যাপটপ ‘লক’ করে দিয়ে পাসওয়ার্ডও বদলে ফেলতে পারবেন। তবে এর জন্য আপনার ল্যাপটপে আগে থেকেই ‘ফাইন্ড মাই ডিভাইস’ ফিচারটি চালু থাকা লাগবে।

ল্যাপটপের ‘স্টার্ট’ মেন্যু থেকে ‘সেটিংস’ অপশনে যান। ‘আপডেট অ্যান্ড সিকিউরিটি’ অপশন থেকে ‘ফাইন্ড মাই ডিভাইস’ অপশনটি চালু করে নিন।

ল্যাপটপ চুুরি হলে ফিচারটি ব্যবহার করবেন যেভাবে

অন্য কোনো ডিভাইস থেকে https://account.microsoft.com/devices ওয়েবসাইটে গিয়ে আপনার মাইক্রোসফট অ্যাকাউন্টে সাইন-ইন করুন। এরপর ‘ফাইন্ড মাই ডিভাইস’ অপশনে যান। যে ডিভাইসটির সন্ধান চাচ্ছেন তা নির্বাচন করুন। এবার ‘ফাইন্ড’ অপশনে ক্লিক করলেই একটি ম্যাপে আপনার ডিভাইসের লোকেশন দেখতে পাবেন।

অনেকের ল্যাপটপে একাধিক লগইন আইডি থাকে। এক্ষেত্রে আপনার অ্যাকাউন্টটি যদি অ্যাডমিনিস্ট্রেটর অ্যাকাউন্ট না হয় তাহলে এই ফিচারটি কাজ করবে না। ‘ফাইন্ড মাই ডিভাইস’ ফিচার দিয়ে ল্যাপটপের লোকেশন জানতে চাইলে অবশ্যই তাতে অ্যাডমিনিস্ট্রেটর অ্যাকাউন্ট অন থাকা লাগবে।

এছাড়া ল্যাপটপের চোরকে ধরার অন্যান্য কার্যকরী উপায়ের মধ্যে রয়েছে- ল্যাপটপে আগে থেকেই ট্রাকিং সফটওয়্যার ব্যবহার করা।ল্যাপটপের লোকেশন ট্র্যাক করার জন্য ‘Prey’ এর মতো নানা ধরনের সফটওয়্যার আছে। এ ধরনের সফটওয়্যারগুলো ব্যবহারের সুবিধা হচ্ছে- ল্যাপটপে অস্বাভাবিক কিছু ঘটলে তাৎক্ষণিকভাবে নোটিফিকেশন পেয়ে যাবেন এবং রিয়েল টাইমে লোকেশন ট্রাক করতে পারবেন।

ল্যাপটপের নিরাপত্তার জন্য এর সিরিয়াল এবং মডেল নম্বর মনে রাখুন বা কোথাও লিখে রাখুন। হারিয়ে যাওয়া ল্যাপটপ পরবর্তীতে উদ্ধারে এই নম্বরগুলো আপনাকে যথেষ্ট সাহায্য করবে।

চুরি যাওয়া ল্যাপটপ জিমেইল ব্যবহার করে উদ্ধারের উপায়

উপরোক্ত পরিষেবাগুলো ব্যবহারে যদি সমর্থ না হোন তাহলে তার মানে এই নয় যে, চুরি যাওয়া ল্যাপটপ উদ্ধারের আরো কোনো সুযোগ নেই। জিমেইল ব্যবহার করেও আপনার চুরি যাওয়া ল্যাপটপটি উদ্ধারের চেষ্টা করতে পারেন। জিমেইলের মাধ্যমে আইপি অ্যাড্রেস ট্র্যাক করতে পারবেন।

 

এক্ষেত্রে যা করতে হবে তা হলো- অন্য কোনো কম্পিউটার থেকে আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টে লগইন করুন। এবার নিচের ডান দিকের কোণায় থাকা ‘ডিটেইলস’ অপশনে ক্লিক করুন। নতুন একট পেজ ওপেন হবে, যেখানে সাম্প্রতিক সময়ে আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্ট ব্যবহৃত হওয়া সবগুলো ডিভাইসের আইপি অ্যাড্রেস প্রদর্শিত হবে। কোনো আইপি অ্যাড্রেসকে সন্দেহজনক মনে হলে তা নিয়ে পুলিশের দ্বারস্থ হোন।

তথ্যসূত্র: টেক অ্যাডভাইজার

তথ্যসূত্র: রাইজিংবিডি

টেক টাইমস বিডি

টেক টাইমস বিডি ফেসবুক গ্রুপে যোগ দিয়ে প্রযুক্তি বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করতেঃ এখানে ক্লিক করুন
টেক টাইমস বিডি ফেসবুক পেইজ লাইক করে সাথে থাকুনঃ টেক টাইমস বিডি ফেসবুক পেজের লিংক
টেক টাইমস বিডি ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করতেঃ এখানে ক্লিক করুন এবং তথ্য প্রযুক্তির আপডেট ভিডিও দেখুন।
গুগল নিউজে টেক টাইমস বিডি সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন।
তথ্য প্রযুক্তির আপডেট খবর পেতে ভিজিট করুন www.techtimesbd.com ওয়েবসাইট।

এই বিভাগের আরও খবর

Back to top button
error: Content is protected !!