সর্বশেষঃ

ব্লেন্ডারে যেসব খাবার দেবেন না

রান্নাঘরের কাজ অনেকটাই সহজ করে দিয়েছে ‘ব্লেন্ডার’ নামক যন্ত্রটি। মসলা বাটা, জুস বানানো-সবই চোখের নিমেষে হয়ে যায় বেল্ডারের সাহায্যে। এত সময় ও শ্রম দুটোই বাঁচে। এ কারণে যত দিন যাচ্ছে, তত বেশি মানুষ রান্নার কাজে ব্লেন্ডারের ওপর নির্ভর হয়ে পড়ছে।

তবে কিছু খাবার রয়েছে, যেগুলো ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড না করাটাই ভালো। যেমন-

আলু: আলুতে এমনিতেই প্রচুর পরিমাণে স্টার্চ থাকে। ব্লেন্ডারে আলু পেস্ট করলে আলুতে স্টার্চের পরিমাণ আরও বেড়ে যায়। অতিরিক্ত স্টার্চযুক্ত আলু স্বাস্থ্যের জন্য ভালো নয়।

হিমায়িত খাবার: ফ্রোজেন বা হিমায়িত ফলমূল এবং শাকসবজি পেস্ট করার জন্য ব্লেন্ডারে দেবেন না। বিশেষজ্ঞদের মতে, অতিরিক্ত ঠান্ডায় সবজি বা ফল থাকার কারণে খুব শক্ত হয়ে থাকে। ফলে সেগুলো সহজে পেস্ট হয় না। তাই সেগুলো ফ্রিজ থেকে বার করে কিছুক্ষণ বাইরে রাখুন। স্বাভাবিক তাপমাত্রায় এনে তার পরই ব্লেন্ডারে পেস্ট করুন।

গরম খাবার: ব্লেন্ডারে গরম জিনিস রাখা বিপজ্জনক হতে পারে। রান্নার স্বাদ বাড়াতে অনেকেই পেঁয়াজ, রসুন অথবা কোনো মসলাপাতি আগে কড়াইতে নেড়ে নিয়ে তারপর ব্লেন্ডারে পেস্ট বানাতে দেন। কিন্তু এতে ক্ষতি হতে পারে। কড়াই থেকে সরাসরি গরম খাবার ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করলে তার মধ্যে প্রচুর বাষ্প ও চাপ তৈরি হতে পারে, যা বিস্ফোরণের ঝুঁকিতে ফেলতে পারে। তাই ভুল করেও গরম জিনিস ব্লেন্ডারে পেস্ট করবেন না।

তীব্র গন্ধযুক্ত খাবার: পেঁয়াজ রসুন, আদা ব্লেন্ডারে পেস্ট করা নিত্যদিনের কাজ। কিন্তু এগুলো ব্লেন্ডারে বাটলে তার গন্ধ দীর্ঘ দিন থেকে যায়। পরে অন্য কিছু বাটার সময়ে তার মধ্যে গত দিনের পেঁয়াজ, রসুনের গন্ধ মিশে যেতে পারে।

আটা, ময়দা: অনেকে আবার আটা, ময়দা মাখার ক্ষেত্রেও ব্লেন্ডার ব্যবহার করেন। কিন্তু এটা একেবারেই করা উচিত নয়। ব্লেন্ডারের ব্লেডগুলো আদা, ময়দা মাখার জন্য নয়। ফলে এতে ঠিকমতো আদা, ময়দা মাখা নাও হতে পারে। তাছাড়া, আটা মাখার পর ব্লেন্ডার পরিষ্কার করার কাজটা বেশ ঝামেলাপূর্ণ।

তথ্যসূত্র: বোল্ড স্কাই

টেক টাইমস বিডি

টেক টাইমস বিডি ফেসবুক গ্রুপে যোগ দিয়ে প্রযুক্তি বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করতেঃ এখানে ক্লিক করুন
টেক টাইমস বিডি ফেসবুক পেইজ লাইক করে সাথে থাকুনঃ টেক টাইমস বিডি ফেসবুক পেজের লিংক
টেক টাইমস বিডি ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করতেঃ এখানে ক্লিক করুন এবং তথ্য প্রযুক্তির আপডেট ভিডিও দেখুন।
গুগল নিউজে টেক টাইমস বিডি সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন।
তথ্য প্রযুক্তির আপডেট খবর পেতে ভিজিট করুন www.techtimesbd.com ওয়েবসাইট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!